আমি এক নারী l

আমি এক নারী

আজ ও পিছু ছারলো না সেই ভয়ংকর শব্দটা।
যার চারদিকে শুধু কাটা আর কাটা।
মহা-সমুেদ্রের উত্থান পতন ।
অন্ধকার ,ঘৃনা ,অবহেলা, কান্না, যন্তনা, লাঞ্চনা , অপমান আরো অনেক কিছু জড়িয়ে আছে ।
নামটা শুনলেই শুধু বুকের এক কোনে, কেমন যেন শুকনো পাতার মতো মরমর ভেঙে যাওয়ার আওয়াজ হয় ।
যার নামঃ
দুঃখ দুঃখ দুঃখ শুধুই দুঃখ ।
দুঃখ কখনো এসে বলেনা
আমি কি তোমায় খুব বিরক্ত করছি
বলে দিতে পারো তা আমায়,,
ছেড়ে চলে যাব তোমায়
আমারও তো মন ভাঙ্গে, চোখে জল আসে
অভিমান আমারও তো হয়।
বলে না সে
অথচ!
সে চায়, আরো কি করে জরিয়ে থাকা যায়।

***আজ মনে হচ্ছে ভূল করেছিলাম,
সেদিন ফিরে এসে ।
তবে তো দুঃখ আর আমায় ছুতে পারতোনা ।
কেন ফিরে এলাম ?
আচ্ছা আর কত ভুল করবো ।
আর কতটা ভুল করলে জীবন থেকে শিক্ষা পাব।
সে রাতে কেন বুজতে পারিনি ?
আমার জীবনের প্রথম শ্রেষ্ট উপহার। বিধাতা আমার জন্য পাঠিয়েছেন ।
যে উপহার ধরে রাখার মতো যায়গা পৃথিবীতে ছিলনা।
পাপের মাএা এতোটাই যায়গা জুরে নিয়েছে,
যে বিধাতা দেওয়া পবিত্র উপহারটা রাখার কোন যায়গা পেলামনা।
জীবনে সব হারালাম, বিশ্বাস, ভালোবাসা,আদর, মায়া মমতা, আশা ,স্বপ্ন । আর তো কিছুই রইলনা ।
যা রইল , তা হলে –

কিছু নিরব চাপা কান্না ,অসহ্যকর যন্তনা, যা আমাকে কুরে কুরে খায়।আমার এই ছোট বুকের মাঝে, যন্তনার এক বিশাল পাহার গড়ে ওঠেছে…………………..
আমি এই যন্তনার পাহার ভাংতে পারছিনা।

এই কোন পাপের শাস্তি ?
আমি ভোগ করছি,
না পারছি মরতে
না পারছি বাঁচতে
না পারছি হাসতে
না পারছি মন খুলে কাঁদতে ।

প্রতিদিনি আমাকে অভিনয় করে চলতে হয়।
অভিনয় করতে করতে আজ বড় ক্লান্ত ।
যন্তনা এমন ভাবে বাসা বেদেছে কোন ভাবেই সে বাসাটা ভাংতে পারছিনা,
এতো কেন শক্তি যন্তনার ।
আমি তার সাথে কেন ভাবেই পেরে উঠতে পারছিনা।

আমি আর একটু সাহস চাই।
আমি আর একটু শক্তি চাই।
আমি আর একটু মনের য়োর চাই।
আমি আর একটু তোর উৎসাহ চাই।
আমি জানি, আজ আমার কথার কোন দাম নেই ।

আমার দেহ মন আর বিবেক
তিন জনি একে অপরের বেশ ভালো বন্ধু ছিল ।
এরা দুঃখে সুখে একে অপরের পাশে থেকেছে ।
আজ তিনজনি আলাদা হয়ে গেল।
কেউ কারো কথা ভাবেনা ,
একে অণন্যর দোষ দিচ্ছে ।
কেন? কেন?কেন?
আজ বড় সার্থপর হয়ে গেল।
হেরে গেলাম আমি ,হেরে গেলাম
বোস্তবতার কাছে, জীবনের কাছে।
কেন বারবার প্রশ্ন ছুড়ে দেয় ?
আমার এই জীবনের জন্য কি শুধু ই আমি দায়ী?
নাকি অন্যরা ও দায়ী এই সমাজ আর অন্ধ কুসংকার ।প্রতিটি মানুষের জীবনে ঘটনার জন্য দায়ী থাকে এই অন্ধ সমাজের অন্ধ নিয়ম নীতি গুলো আর নোংরা মানুষ ।আমি নারী বলেই কি এতো নিয়ম নীতি ,শুধু নারী, নারী, নারী ,আর কতো নারীর দোষ দিয়ে তোমরা পার পেয়ে যাবে।আজ নারীর দোষ দিয়ে পার পেয়ে গেলে ও ওপারে কার দোষ দিয়ে পার পাবে ।
…………………..নারী…………..
আমি এক নারী

আরও পড়ুন

Wednesday, September 22, 2021

সর্বশেষ