পাবনায় সানরাইজ ক্লিনিকের সেবিকা সুমি হত্যার বিচারের দাবিতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত

পাবনা জেলা প্রতিনিধি : পাবনার বেসরকারি হাসপাতাল সানরাইজ ক্লিনিকে চাকরিরত অবস্থায় মারা যাওয়া সুমী হত্যা’র প্রতিবাদে ও সুষ্ঠু তদন্তের দাবীতে মানবমন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।(০৭ সেপ্টেম্বর) পাবনার ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতাল থেকে সুমি হত্যার বিচারের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে পাবনা প্রেসক্লাবের সামনে ঘন্টা ব্যাপী মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধন চলাকালে নার্সিং ইনষ্টিটিউটের ছাত্র-ছাত্রীরা তাদের বক্তব্যে সুষ্ঠ তদন্তের মাধ্যামে সুমী হত্যার মূল হোতাকে গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী জানান। সুমির বাবা সৈকত আলী বলেন, আমার মেয়েকে ক্লিনিকে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়েছে, আমি এই নির্মম হত্যার বিচার চাই। নিহত সুমির স্বামী জাহিদ হাসান বলেন, আমার স্ত্রী সুমি পাবনা সানরাইজ ক্লিনিক এন্ড হসপিটালে তিন মাস যাবৎ সেবিকা হিসেবে কর্মরত ছিলেন। তাকে ওরা মেরে ফেলছে। সুমী হত্যার প্রতিবাদে মাবনবন্ধনে অংশ নেন পাবনা সরকারি নার্সিং ইনষ্টিটিউট, পাবনা আইডিয়াল নার্সিং ইনষ্টিটিউট, ব্রাইটনেশন নার্সিং ইনষ্টিটিউট, মিতু নার্সিং ইনষ্টিটিউট, কমিউনিটি নার্সিং ইনষ্টিটিউট, স্মার্ট নার্সিং ইনষ্টিটিউট’র সকল শিক্ষার্থীবৃন্দ উল্লেখ্য গত বুধবার (০৪ সেপ্টেম্বর) পাবনা শহরের শালগাড়িয়া মহল্লার সানরাইজ ক্লিনিক এন্ড হসপিটালে সুমী খাতুন (২২) নামের এক সেবিকার রহস্যজনক মৃত্যু হয়।
এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য দুই জনকে আটক করেছে পুলিশ। নিহত সুমি খাতুন আটঘরিয়া উপজেলা ও আতাইকুলা থানার লক্ষীপুর গ্রামের সৈকত আলীর মেয়ে। তিনি প্রায় ৩ মাস ধরে সানরাইজ ক্লিনিক এন্ড হসপিটালের সেবিকা হিসেবে কর্মরত ছিলেন।

আরও পড়ুন

Thursday, September 23, 2021

সর্বশেষ