ডোমারে সড়ক দূর্ঘটনায় দুই বরযাত্রী নিহত ও আহত ৫।

(নীলফামারী) প্রতিনিধি: নববধু নিয়ে বাড়ী ফেরার পথে সড়ক দূর্ঘটনায় নীলফামারীর ডোমার উপজেলায় দুই বরযাত্রী নিহত ও পাঁচজন আহত হয়েছে। মঙ্গলবার রাতে ডোমার-দেবীগজ্ঞ সড়কের পাগলা বাজার আমতলী এলাকায় ট্রাক্টর ও মাইক্রোবাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে দূর্ঘটনাটি ঘটে। পুলিশ লাশ উদ্ধার ও আহতদের হাসপাতালে ভর্তি করিয়ে চিকিৎসার দায়িত্ব নিয়েছে ডোমার থানা ওসি মোস্তাফিজার রহমান। নিহতরা হলেন,উপজেলার বোড়াগাড়ী ইউনিয়নের পূর্ব বোড়াগাড়ী লালার খামার এলাকার জাহিদুল ইসলামের স্ত্রী রুনা বেগম (৪০) পানিয়াল ইসলামের স্ত্রী সখিনা বেগম (৫৫)। আহতরা হলেন একই এলাকার আফিজারের স্ত্রী হামিদা বেগম(৫৫) মাইক্রো চালক আব্দুল মজিদ(৩৫) জয়িতা আক্তার (১২) জান্নাত আক্তার (১০) লতিফা বেগম (২২)। গুরুতর আহত হামিদা বেগম ও মাইক্রো চালক আব্দুল মজিদকে ডোমার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স কতৃপক্ষ রংপুর মেডিক্যাল কলেজে উন্নত চিকিৎসার জন্য রেফার্ড করেন। দূর্ঘটনায় আক্রান্তরা জানায়, পাশ্ববর্তী দেবীগজ্ঞ উপজেলার তিস্তার হাট এলাকায় বর গোলাম রাব্বানীর বিয়ে শেষে নববধু নিয়ে বরযাত্রীর গাড়ী বহর ডোমারে বাড়ীর উদ্দ্যেশে ফিরছিল। রাত নয়টার দিকে পাগলাবাজার আমতলী এলাকায় একটি ট্রাক্টর বরযাত্রীর গাড়ী বহরের প্রথম গাড়িটির সাথে মূখোমূখি সংঘর্ষ হয়। এতে মাইক্রোবাসটি দুমড়ে-মুছড়ে পাশ্ববর্তী খাদে পড়ে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই রুনা বেগম মারা যায়। দ্রুত এলাকাবাসী,পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা ঘটনাস্থল থেকে সাতজনকে উদ্ধার করে ডোমার ও দেবীগজ্ঞ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। ঘাতক ট্রাক্টরটি পালিয়ে গেলেও রাতেই ডোমার থানা ইন্সপেক্টর(তদন্ত) বিশ্বদেব রায় সঙ্গীয় ফোর্সসহ অভিযান চালিয়ে দেবীগঞ্জ এলাকায় সাহীন ব্রিক্সসের ট্রাক্টরটি আটক করলেও ড্রাইভার পালিয়ে যায়। ডোমার থানার অফিসার ইনচার্জ মোস্তাফিজার রহমান দূর্ঘটনায় দুইজন নিহতের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান,পুলিশ সুপারের নির্দেশে আহত সকলের চিকিৎসা ব্যয় বহন করবে ডোমার থানা পুলিশ। রাতেই ঘাতক ট্রাক্টরটি আটক করা হয়েছে। দ্রুত ট্রাক্টর ড্রাইভারকে আটক করা হবে।

আরও পড়ুন

Sunday, September 26, 2021

সর্বশেষ