মনপুরায় বিএনপির বিক্ষোভ সমাবেশ ও আ’লীগের শোক সভাকে ঘিরে টানটান উত্তেজনা

ভোলা প্রতিনিধি : ভোলার মনপুরায় জ্বালানি তেলসহ নিত্যপণ্যের মূল্যবৃদ্ধি এবং ভোলায় পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ জেলা ছাত্রদলের সভাপতি নুরে আলম ও স্বেচ্ছাসেবকদল কর্মী আবদুর রহমানের মৃত্যুতে বিক্ষোভ সমাবেশের আয়োজন করে উপজেলা বিএনপি। অপরদিকে ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবস ও বঙ্গবন্ধুর ৪৭ তম শাহাদাৎ বার্ষিকীর আয়োজন করে উপজেলা আ’লীগ। এদিকে বিএনপি ও আ’লীগের পৃথক কর্মসূচীকে কেন্দ্র করে পুরো উপজেলা জুড়ে টানটান উত্তেজনা বিরাজ করে। বৃহস্পতিবার (২৫ আগস্ট) দুপুর ৩ টায় উপজেলা সদর হাজিরহাট বিএনপির কার্যালয়ের সামনে বিক্ষোভ সমাবেশর স্থান নির্ধারন করে উপজেলা বিএনপি। একই সময়ে উপজেলা সদর হাজিরহাট বাজারে আ’লীগের কার্যালয়ের সামনে শোক সভার আয়োজন করে আ’লীগ।
এর আগে উপজেলা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মফিজুল ইসলাম মিলন মাতাব্বরের নেতৃত্বে একটি টিম পুলিশের সাথে দেখা করে সমাবেশের অনুমতি নেন। কয়েকটি শর্তে বিএনপিকে বিক্ষোভ সমাবেশের অনুমতি দেন বলে নিশ্চিত করেন মনপুরা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সাইদ আহমেদ।
উপজেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক সহকারি অধ্যাপক মাহবুবুল আলম শাহীন জানান, বিএনপির বিক্ষোভ সমাবেশে চরফ্যাশন-মনপুরার সাবেক এমপি ও কেন্দ্রীয় বিএনপির নির্বাহী কমিটির সসদ্য নাজিম উদ্দিন আলম উপস্থিত থেকে প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখবেন।
এদিকে বুধবার (২৪ আগস্ট) সন্ধ্যায় উপজেলা আ’লীগের উদ্যোগে ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলায় হত্যায় জড়িতের শাস্তির দাবীতে বিক্ষোভ মিছিল শেষে সমাবেশে বক্তরা বিএনপির সাবেক সংসদ সদস্য নাজিম উদ্দিন আলমকে অবাঞ্চিত ঘোষণার পাশাপাশি প্রতিহত করারও ঘোষণা দেন। অপরদিকে আ’লীগের প্রতিহত করার ঘোষণা দেওয়ার পরই সংঘর্ষ এড়াতে উপজেলা বিএনপির বিক্ষোভ সমাবেশ স্থগিত করা হয়েছে বলে উপজেলা বিএনপির একাধিক নেতা নিশ্চিত করেন। তারা এত তাড়াতাড়ি আ’লীগের মুখোমুখি হতে চায় না বলে জানান তারা।
তবে এই ব্যাপারে উপজেলা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মফিজুল ইসলাম মিলন মাতাব্বর জানান, ২৫ আগস্ট কেন্দ্রীয় বিএনপির অনুষ্ঠান সূচিতে সাবেক এমপি নাজিম উদ্দিন আলম অংশগ্রহন করবেন। তাই তিনি উপজেলা বিএনপির বিক্ষোভ সমাবেশে উপস্থিত থাকতে পারেবেনা বলে বিক্ষোভ সমাবেশ স্থগিত করা হয়েছে। এছাড়াও কৌশলগত কারনেও সমাবেশ স্থগিত করা হয়েছে বলে তিনি জানান।
অন্যদিকে উপজেলা যুবলীগের সম্পাদক মনিরুজ্জামান মনির জানান, ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলায় জড়িতের শাস্তির দাবীতে উপজেলা যুবলীগের বিক্ষোভ মিছিল অব্যাহত থাকবে। এছাড়াও ২০০৫ সালে হাজিরহাট বাজারে আ’লীগ দলীয় ব্যবসায়ীদের ৯ টি দোকান লুটপাট করার নির্দেশদাতা নাজিম উদ্দিন আলমকে অবাঞ্চিতর পাশাপাশি প্রতিহত করার ঘোষণা দেন তিনি।
উপজেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ জাকির হোসেন মিয়া জানান, ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবস ও বঙ্গবন্ধুর ৪৭ তম শাহাদাত বার্ষিকী উপলক্ষ্যে মাসব্যাপি উপজেলা আ’লীগ কর্মসূচী রেখেছে। আগ থেকে নির্ধারিত ২৫ আগস্ট দুপুর ৩ টায় আ’লীগের দলীয় কার্যালয়ের সামনে শোক সভার আয়োজন করা হয়েছে।

আরও পড়ুন

Thursday, October 6, 2022

সর্বশেষ